ঠাকুরগাঁওয়ে ডোবা থেকে মা ও দুই সন্তানের মরদেহ উদ্ধার

ঠাকুরগাঁওয়ে ডোবা থেকে মা ও দুই সন্তানের মরদেহ উদ্ধার


ঠাকুরগাঁওয়ের রাণীশংকৈলে বাড়ির পার্শ্ববর্তী ডোবা থেকে মা ও দুই সন্তানের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। উপজেলার ধর্মগড় ইউনিয়নের ভরনিয়া শেয়ালডাঙ্গী গ্রামে এই ঘটনা ঘটেছে।

বৃহস্পতিবার (১৫ অক্টোবর) সকালে তাদের তিনজনের মরদেহ পড়ে থাকতে দেখে প্রতিবেশীরা পুলিশে খবর দেয়। পরে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে মরদেহ ৩টি উদ্ধার করে। তবে এখন পর্যন্ত তাদের মৃত্যু কারণ নিশ্চিত করতে পারেনি পুলিশ।

মৃতরা হলেন- ওই গ্রামের আকবর আলীর স্ত্রী আরিফা খাতুন (৩২), তার কন্যা তৃতীয় শ্রেনির ছাত্রী আখি আক্তার (১০) ও পুত্র সন্তান আরাফাত (৫)।

এদিকে পরিবারের স্বজনরা এই ঘটনাকে পরিকল্পিত হত্যাকাণ্ড বলে দাবি করছেন। হত্যাকাণ্ডে জড়িতদের দ্রুত আইনের আওতায় নিয়ে আসার দাবি জানিয়েছেন তারা।

গৃহবধুর স্বামী আকবর আলী জানান, রাতে সবাই এক বিছানায় ঘুমিয়েছিলাম। সকালে ছেলে-মেয়ে ও স্ত্রীকে না পেয়ে শ্বশুড়বাড়ীতে খুজতে গিয়েছিলাম। আমি বাড়ী ফেরার আগেই স্থানীয়রা ও আমার বাবা সিরাজুল ইসলাম ডোবা থেকে ৩ জনের মরদেহ উদ্ধার করেন।

গৃহবধুর শ্বশুড় সিরাজুল ইসলাম জানান, এর আগেও আমার পুত্রবধু গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করেছিল। পরে স্থানীয়রা বিষয়টি মীমাংসা করে দিয়ে আমাদের জিম্মায় তুলে দেয়। পরে এমন ঘটনা ঘটাবে আমরা কোনদিন ধারনা করিনি।

গৃহবধুর মামা আলাউদ্দীন জানান, ৩ জনকেই পরিকল্পিত ভাবে হত্যা করেছে বলে আমরা ধারণা করছি। আমরা ঘটনার সাথে জড়িত সকলকে আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানাচ্ছি।

এ ঘটনার পর সহকারী পুলিশ সুপার তোফাজ্জল হোসেন ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।

রাণীশংকৈল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা এ কে জাহিদ ইকবাল জানান, আমরা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। পুরো বিষয়টি অত্যন্ত গুরুত্বের সাথে খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

বার্তা প্রেরক
অন্তর রায় প্রিন্স
ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি

মন্তব্য করুনঃ

আপনার মন্তব্য লিখুন!
এখানে আপনার নাম লিখুন